ওপেন নিউজ
  • | |
  • cnbangladesh.com
    opennews.com.bd
    opennews.com.bd
    opennews.com.bd
    opennews.com.bd
opennews.com.bd

মিডিয়া

রংপুরে জাহিদ এখন মালয়েশিয়ার খ্যাতনামা অধ্যাপক


Date : 08-25-17
Time : 1503685617

opennews.com.bd

ওপেননিউজ # পাম অয়েল থেকে বাটার। আমের আ‍টিঁ থেকে বাটার। এমনকি লজ্জাবতী গাছ থেকে ডায়াবেটিসের ওষুধ। এমন বহু আবিষ্কার তার। বিশ্বের বিভিন্ন দেশের শীর্ষস্থানীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের তিনি ভিজিটিং প্রফেসর। তার সাফল্যের স্বীকৃতি এখন বিশ্বজুড়ে।
আমেরিকান ক্যামিক্যাল্স সোসাইটির ইয়ং সায়েন্টিস্ট অ্যাওয়ার্ড পেয়েছেন ২০১০ সালে। পরের বছর ‘একস্ট্রা অর্ডিনারি সায়েন্টিস্ট’ হিসেবে যুক্তরাষ্ট্র সরকার সপরিবারে তাকে দিয়েছে গ্রিনকার্ড।
জাহিদুল ইসলাম সরকার (৪৭)। রংপুর জেলার পীরগঞ্জের ১৩ নম্বর রা ইউনিয়নের ঘোলা গ্রামের সন্তান। বাবা এজাহার আলী সরকার সাবেক উপ সহকারী কৃষি কর্মকর্তা। দুই ভাই চার বোনের মধ্যে সবার বড় জাহিদুল ইসলাম সরকার বর্তমানে মালয়েশিয়ায় আন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের কোয়ানতান ক্যাম্পাসে ফার্মেসি বিভাগের অধ্যাপক।
উদ্ভাবনী কর্ম, মেধা আর দক্ষতা দিয়ে বিশ্বে বাংলাদেশের নাম করেছেন উজ্জ্বল। আধুনিক ও উন্নত দেশের নাগরিকত্ব তাকে হাতছানি দিয়ে ডাকছে। তবে বাংলাদেশি পরিচয়েই গর্বিত বোধ করেন তিনি।
জাহিদুল ইসলাম ছিলেন ভোলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী। বাবার বদলির চাকরির সুবাদে ঘুরেছেন দেশের নানা প্রান্তে। গাইবান্ধার সাদুল্লাহপুর ধাপেরহাট বিএমপি হাইস্কুল থেকে এসএসসি এবং পলাশবাড়ী সরকারি কলেজ থেকে এইচএসসি।
এরপর ভর্তি হন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণ রসায়ন ও অণুজীব বিজ্ঞান বিভাগে। ১৯৯৬ সালে বিএসসি অনার্স শেষে বসেন বিসিএস পরীক্ষায়। প্রিলিতে উত্তীর্ণ হন তিনি। এর মাঝে উচ্চ শিক্ষায় স্কলারশিপ নিয়ে চলে আসেন মালয়েশিয়ায়। ইউনির্ভাসিটি অব সায়েন্সে মাস্টার্স সম্পন্ন করেন ফুড টেকনোলজিতে। পরে সেখানে পিএইচডি করেন গ্রিন প্রসেসিং অব ফুড অ্যান্ড ফার্মাসিউটিক্যাল্সে।
শিক্ষকতা পেশায় যোগ দিতে ডাক আসে জাপান থেকে। সেন্দাইতে তহুকু বিশ্ববিদ্যালয়ে যোগ দেন রিসার্চ অ্যাসোসিয়েট হিসেবে। তারপর কেবলই জাহিদুল ইসলামের এগিয়ে চলার গল্প। জেএসপিএস ফেলো হয়ে হোক্কাইডোতে ফুড অ্যান্ড অ্যাগ্রিকালচারাল রিচার্স অর্গানাইজেশনে যোগ দেন তিনি।
এরপর সহযোগী অধ্যাপক হয়ে যোগ দেন ইউনভার্সিটি পুত্রা মালয়েশিয়ায়। সাড়ে চার বছর শিক্ষকতা করেন এখানে। ইউনিভার্সিটি অব পুত্রা মালয়েশিয়া থেকে যোগ দেন মালয়েশিয়ার আন্তর্জাতিক ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ে। কোয়ানতান ক্যাম্পাসে ফার্মেসি বিভাগের অধ্যাপক হিসেবে।
ফ্যাকাল্টিতে হেড অব রিসার্চ হিসেবেও দায়িত্ব পালন করেন তিনি। ফ্যাকাল্টিতে তিনিই একমাত্র অধ্যাপক, জাতীয়তায় যিনি আবার বাংলাদেশি। তার সরাসরি তত্ত্বাবধান ও কো-সুপারভিশনে এমএসসি ও পিএইচডি ডিগ্রি অর্জন করছেন দেশি-বিদেশি বহু শিক্ষার্থী।
বিভিন্ন গবেষণার স্বীকৃতি স্বরূপ জাহিদুল ইসলাম সরকার পেয়েছেন জাতীয় ও আন্তর্জাতিক নানা সম্মাননা আর পদক। আড়াইশ’র অধিক আন্তর্জাতিক জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে তার লেখা।
এছাড়াও বিভিন্ন দেশে আয়োজিত বিজ্ঞানবিষয়ক নানা কনফারেন্স ও সেমিনারে তিনি অতিথি হিসেবে বক্তব্য রেখেছেন। তার উদ্ভাবনের প্যাটেন্ট হয়েছে চারটি। কিং সাউদ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভিজিটিং প্রফেসর হিসেবেও শিক্ষার্থীদের সামনে নিজেকে উপস্থাপন করেন এই অধ্যাপক। এই বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে আসা বাংলাদেশি শিক্ষার্থীরা তার কাছ থেকে পান পিতৃত্বের ছায়া। শিক্ষার্থীদের বিপদে-আপদে তিনিই যেন প্রেরণা।
২০০১ সালে বিয়ে করেন জাহিদুল ইসলাম। স্ত্রী ও দুই কন্যা নিয়ে থাকেন কোয়ানতানেই।
অদম্য ইচ্ছে শক্তি আর অধ্যাবসায় নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে যথেষ্ট বলে মনে করেন জাহিদুল ইসলাম সরকার। তাঁর মতে আমাদের শিক্ষার্থীদের তাত্ত্বিকের পাশাপাশি গবেষণায় বাড়তি মনযোগ দেওয়া প্রয়োজন।
শিক্ষার পাশাপাশি গবেষণা আর বিদেশি জার্নালে নিজের উদ্ভাবনী বিষয়গুলো যত বেশি প্রকাশিত হবে ততই নিজেকে একজন শিক্ষার্থী দ্রুত বিশ্বের কাছে নিয়ে যেতে পারবেন বলেও মত দেন তিনি।
তার ছোট ভাই ডঃ শহিদুল ইসলাম সরকার। তিনিও জাপান থেকে ডক্টরেট শেষ করে বাংলাদেশে একটি বেসরকারী বিশ্ববিদ্যালয়ে কর্মরত আছেন।


 


 




মিডিয়া



























সম্পাদক মণ্ডলীর সভাপতিঃ এনামুল হক শাহিন
প্রধান সম্পাদকঃ সিমা ঘোষ
সম্পাদকঃ নরেশ চন্দ্র ঘোষ

ঠিকানাঃ
২৩/৩ (৪ তালা), তোপখানা রোড, ঢাকা-১০০০
ফোনঃ ০২৯৫৬৭২৪৫, ০১৯৭৭৭৬৮৮১১
বার্তা কক্ষঃ ফাক্সঃ ০২৯৫৬৭২৪৫, ০১৬৭৬২০১০৩০
অফিসঃ ০১৭৯৮৭৫৩৭৪৪,
Email: editoropennews@gmail.com



ভারপ্রাপ্ত সম্পাদকঃ নুরে খোদা মঞ্জু
ব্যাবস্থাপনা সম্পাদকঃ গাউসুল আজম বিপু
বার্তা সম্পাদকঃ জসীম মেহেদী
আইটি সম্পাদকঃ সাইয়িদুজ্জামান